শিরোনাম :
রায়পুরায় প্রতিপক্ষের হামলায় ভাইস চেয়ারম্যান প্রার্থীর মৃত্যু নরসিংদী দুই উপজেলায় বেলাবতে রিটন মনোহরদীতে স্বপন বিজয়ী নরসিংদীতে বজ্রপাতে মা ও ছেলেসহ নিহত ৪ জন ।। আহত ১ নরসিংদীর চর আড়ালিয়ায় আধিপত্য বিস্তারে আওয়ামী লীগ নেতা সজীব সরকার বাহিনীর তান্ডব।। পুলিশ নির্বিকার নরসিংদী পুলিশ লাইনে মাষ্টার প্যারেড অনুষ্ঠিত সাবেক এমপি পোটনসহ পাঁচজন কারাগারে নরসিংদী জেলা পরিষদের চেয়ানম্যানের বিরুদ্ধে অনাস্থা প্রদান জার্মান সফরে ইআরডি প্রতিনিধি দলকে রাষ্ট্রদূত মোশাররফ ভুঁইয়ার শুভেচ্ছা বাজারে কৃত্রিম সংকট তৈরি করতে কোল্ডস্টোরেজে ১৯ লাখ ডিম এসএসসি ফলাফলে নরসিংদীর এনকেএম হাইস্কুল দেশ সেরা
শুক্রবার, ২৪ মে ২০২৪, ১২:৫৬ পূর্বাহ্ন

বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তি ও নিরেপক্ষ সরকারের অধীনে নির্বাচনের জন্য জার্মানীতে কর্মসূচি

স্টাফ রিপোর্টার / ২৩৪ বার
আপডেট : মঙ্গলবার, ১০ অক্টোবর, ২০২৩

বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তি ও সুচিকিৎসা নিশ্চিত করাসহ একটি নিরপেক্ষ সরকারের অধীনে আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনের দাবিতে গত সোমবার বার্লিনে রোডমার্চ ও অবস্থান কর্মসূচী পালন করেছে জার্মান বিএনপিসহ দলটির অঙ্গসংগঠন।
দেশটির ঐতিহাসিক ব্রান্ডেনবুর্গার গেট থেকে শুরু হওয়া রোডমার্চে অংশ নেয়া দলের নেতাকর্মীরা বলেন, সরকার আমাদের নেত্রীকে নিয়ে প্রতিনিয়ত মিথ্যাচার করেছেন। দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে কোনো দুর্নীতির মামলা নেই। শুধুমাত্র রাজনৈতিক প্রতিহিংসার কারণে, বেগম জিয়া যাতে রাজনীতি করতে না পারেন, সে জন্য আজকে তাঁকে মিথ্যা মামলা দিয়ে আটক করে রাখা হয়েছে।
বক্তারা আরও বলেন- এক দফা আন্দোলনে জনগণ সম্পৃক্ত হয়েছে এবং চলমান লড়াইয়ে বিজয় সুনিশ্চিত।সমগ্র দেশের মানুষ আজকে জেগে উঠেছে একটিমাত্র দাবি নিয়ে। সেই দাবি হচ্ছে, এই মুহূর্তে সরকারকে পদত্যাগ করতে হবে।
এসময় নির্দলীয়-নিরপেক্ষ সরকারের হাতে ক্ষমতা হস্তান্তরেরও দাবি জানিয়ে নেতাকর্মীরা বলেন, বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়াকে মিথ্যা মামলায় আটক রেখে, চিকিৎসার সুযোগ না দিয়ে তাঁকে মৃত্যুর দিকে ঠেলে দেওয়া হচ্ছে।
কর্মসূচিতে জার্মান বিএনপির সভাপতি আকুল মিয়া, সাধারণ সম্পাদক গনি সরকার ও মোস্তাক মান্নান ও বার্লিন বিএনপির সভাপতি মো: জসিম সিকদার ও শীর্ষনেতা বাবুল বেপারিসহ দেশটির বিভিন্ন প্রদেশের যুবদল ও ছাত্রদলসহ অঙ্গসংগঠনের নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন। রোডমার্চটি ব্রান্ডেনবুর্গার গেট থেকে জার্মান পার্লামেন্টের সামনে দিয়ে চ্যান্সেলর কার্যালয়ের সামনে এসে শেষ হয়।

Facebook Comments Box


এ জাতীয় আরো সংবাদ