শিরোনাম :
বিদেশিদের কথায় বিএনপি আন্দোলন করে না : ড. মঈন খান নরসিংদীতে আনোয়ার গ্রুপ অব ইন্ডাস্ট্রিজের হালখাতা অনুষ্ঠিত  রেলওয়ের টিকিটে ডিজিটাল প্রতারণা! আয়ূবপুর ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান আব্দুস সাত্তার আর নেই রাঁতের আাধারেই ক্রীড়া সংস্থার কমিটি গঠিত।। হতাশ নরসিংদীর ক্রীড়ামোদীরা রজবেন্নেছা আমজাদ স্মৃতি পাঠাগারে শহিদ দিবস ও আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালিত পবিত্র শবেবরাত আজ শিবপুরে আইডিয়েল কে.জি এন্ড হাই স্কুলের বার্ষিক ক্রীড়া প্রতিযোগিতা ও পুরস্কার বিতরণ রায়পুরা উপজেলা প্রেসক্লাবের সভাপতি হারুনূর রশিদের বড় বোনের ইন্তেকাল নরসিংদীতে বাস-কাভার্ডভ্যানের মুখোমুখি সংঘর্ষে নিহত ২
শনিবার, ০২ মার্চ ২০২৪, ০৭:০২ পূর্বাহ্ন

রাতে গ্রেফতার হয়ে সকালে আদালতে জামিন পেলেন আরিফ চেয়ারম্যান

স্টাফ রিপোর্টার : / ১৭৩ বার
আপডেট : সোমবার, ১৭ জুলাই, ২০২৩

চাঁদাবাজির মামলায় মাধবদীর নুরালাপুর ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান আরিফ হোসেনকে রাতে গ্রেফতার পুলিশ করার পর সকালে আদালতের মাধ্যমে জামিনে ছাড়া পায়। শনিবার ঢাকা-সিলেট মহাসড়কের পাঁচদোনা এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়। রবিবার দুপুরে  আদালতের মাধ‍্যেমে জামিনে মুক্ত হয়। পুলিশ ও আদালত সূত্রে জানা যায়, সম্প্রতি সদর উপজেলার নুরালাপুর ইউনিয়নের হক ট্রেক্সটাইলের মালিক আইনাল হাজী তার বাড়ির সীমানা দেয়াল নির্মান করছিল। সে সময়  নুরালাপুর ইউপি চেয়ারম্যান আরিফ হোসেন ৫/৬ জন লোক নিয়ে দেয়াল নির্মানে বাধা দেয়  এবং ৫ লাখ টাকা চাঁদা দাবী করেন নির্মাণ কাজ বন্ধ করে দেয়। দাবীকৃত চাঁদার টাকা না দেয়ায় চেয়ারম্যানের লোকজন ক্ষিপ্ত হয়ে আইনাল হাজীর মালিকানাধীন হক ট্রেক্সটাইলের কাপড়ের গোডাউনে আগুন লাগিয়ে দেয়। এ ঘটনায়  আইনাল হাজীর ভাগিনা মফিজুর রহমান বাদী হয়ে আদালতে একটি মামলা দায়ের করেন। আদালত মামলার বিষয় আমলে নিয়ে মাধবদী থানাকে এফআইআর হিসেবে গ্রহন করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেয়ার নির্দেশ দেন। এরই প্রেক্ষিতে শনিবার রাতে ঢাকা-সিলেট মহাসড়কের পাচঁদোনা এলাকা থেকে ইউপি চেয়ারম্যান আরিফ হোসেনকে গ্রেফতার করা হয়। পরে রবিবার বেলা ১২টার দিকে তাকে আদালতে পাঠানো হয়। নরসিংদী সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যজিষ্ট্রেট (১ম) আদালতের বিচারক ফারুফা আহম্মেদ’র আদালতে তাকে হাজির করা হয়।

চেয়ারম্যানের আইনজীবিদের আবেদনের প্রেক্ষিতে আদালতের বিজ্ঞ বিচারক উভয় পক্ষের আইনজীবিদের যুক্তি তর্ক শুনে  জামিন মঞ্জর করেন। ক্ষতিগ্রস্থ হক ট্রেক্সটাইল মালিক আইনাল হাজী বলেন, চেয়ারম্যান অন্যায় ভাবে পাঁচ লাখ টাকা চাঁদা দাবি করে আমার কাজ বন্ধ করে দিয়েছিল। পরে তারা কাপড়ের গোডাউনে আগুন দেয়। এঘটনায় থানায় গেলে তারা মামলা নেয়নি।

পরে আদালতে মামলা করি। কাল রাতে তাকে গ্রেফতার হলে সকালে অবার জামিন ছাড়া পায় সে। তিনি দু:খ করে বলেন, এ  অবস্থায় সে আমাদের যেকোনো বড় ধরনের ক্ষতি করতে পারে বলে আশঙ্কা করছি। আমরা সরকারের কাছে সঠিক বিচার দাবী করছি। গ্রেফতার ও জামিন লাভের পর অভিযুক্ত চেয়ারম্যান আরিফ হোসেন বলেন, তিতাস গ্যাস অফিসের জি এম মাসুদ সাহেবের সাথে আইনাল হাজীদের সীমানা নিয়ে বিরোধ চলছিল। বিরোধপূর্ন জমিতে দেয়াল নির্মান করছিল আইনাল হাজী।

এ বিষয়ে তিতাস গ্যাস অফিসের জি এম ইউনিয়ন পরিষদে  লিখিত অভিযোগ দেয়। অভিযোগের প্রেক্ষিতে আমি দেয়াল নির্মাণের কাজ বন্ধ রাখার নির্দেশ দিয়েছি। এতে তিনি ক্ষিপ্ত হয়ে আমার বিরুদ্ধে আদালতে মিথ্যে মামলা দিয়েছেন। বিষয়গুলো আদালতে উপস্থাপনের পর বিচারক আমার জামিন মঞ্জর করেছেন।

মাদবদী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রকিবুজ্জামান জানান, চাঁদাবাজির একটি মামলায় চেয়ারম্যান আরিফ হোসেনকে গ্রেফতার করা হয়। পরে রবিবার তাকে আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে।

Facebook Comments Box


এ জাতীয় আরো সংবাদ